মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ১২:৫৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
পলাশে আপন খালাকে প্রেমের প্রস্তাব,না করায় মারুফ নামে তরুণের গ’লা’য় দ’ড়ি পলাশবাড়ীতে বাস খাদে পড়ে প্রা’ণ গেল হেলপারের কিশোর গ্যাং ও চাঁ’দা’বা’জ মুক্ত শিল্পাঞ্চলের দাবিতে সাভার-আশুলিয়া শ্রমিক সংগঠনের মানববন্ধন গাইবান্ধা প্রেসক্লাবের নতুন কমিটি গঠন : শুভেচ্ছা জানালেন বিভিন্ন সংগঠন লালপুরে ট্রাকের ধা’ক্কা’য় চা’ল’ক’লে ১০ লক্ষাধিক টাকা ক্ষ’তি পরিবেশ বিপর্যয়ের কারণে বিলীন হতে চলছে বাবুই পাখির বাসা ভাঙ্গার একটি টয়লেটের সেফটি ট্যাংকি থেকে মিললো ৪০ হাজার ডলার, চো’র আ’ট’ক। মাদ্রাসাছাত্রীকে ধ’র্ষ’ণে’র অ’ভি’যো’গে যুবক গ্রে’প্তা’র উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আ’গু’ন, নিয়ন্ত্রণে ৯টি ইউনিট! উপজেলা চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ হামিদুল হক চৌধুরীর যানাযায় হাজারো মানুষের ঢল ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার পরিচয়ে চাকুরী দেন প্র’তা’র’ক শাহারুল পালংখালী ইউনিয়ন তাঁতীলীগের নেতৃত্বে আনারস মার্কার গণসংযোগ । পালংখালী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের আওতাধীন ০৭নং ওয়ার্ড এর নেতৃত্বে আনারস মার্কার গণসংযোগ খাদ্য কর্মকর্তার প্রকাশ্যে ঘু’ষ নেওয়ার ভিডিও ভা’ই’রা’ল ৫ কোটি টাকা মূল্যমানের সোনার চালান উ’দ্ধা’র গোবিন্দগঞ্জে ডোবার পানিতে ডু’বে শিশুর মৃ’ত্যু স্ত্রী হ’ত্যা কারীর শা’স্তি’র দাবিতে সড়ক অ’ব’রো’ধ করে বি’ক্ষো’ভ কোট চাঁদপুরে সংবাদ প্রকাশের জেরে সাংবাদিক’কে হ’ত্যা সহ গু’ম করে দেওয়ার হু’ম’কি বিদেশ ফেরত বুলবুলি পেল ব্র্যাক থেকে গাভী ও বাছুর কুড়িগ্রামে গ’লা’য় ফাঁ’স দিয়ে ৬ষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রীর আ’ত্ম’হ’ত্যা

আইসিসির ধার ধারে না আইপিএল

Views: 0

আইপিএলে আগের সবগুলো মৌসুমেই দুর্নীতি দমনে আইসিসির দুর্নীতি দমন বিভাগের (আকসু) সঙ্গে কাজ করেছে বিসিসিআই। এবার থেকে সেটি আর হচ্ছে না। ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড (বিসিসিআই) সিদ্ধান্ত নিয়েছে, আইপিএল পরিচালনায় আর আইসিসির এই বিভাগের দ্বারস্থ হওয়ার কোনো দরকার নেই। আইসিসির সাহায্য নেওয়ার বদলে নিজস্ব দুর্নীতি দমন বিভাগ (এসিইউ) দিয়েই আইপিএল চালাবে বিসিসিআই।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, আইপিএল নিয়ে আকসুর সঙ্গে বিসিসিআইয়ের সম্পর্কচ্ছেদের পেছনে অন্যতম কারণটি অর্থনৈতিক। আইপিএলের গত মৌসুমে ৩.১ কোটি রুপি খরচায় আকসুর সেবা কিনেছে বিসিসিআই। তার চেয়ে অনেক কম খরচেই নিজেদের দুর্নীতি দমন বিভাগকে কাজে লাগানো যাবে বলে জানিয়েছেন বিসিসিআই কমিটি অব অ্যাডমিনিস্ট্রেটরস (সিওএ) প্রধান বিনোদ রাই, ‘কোনো কারণ নেই। কারণ আমরা তাঁদের (আকসু) জন্য যত খরচ করছি, তার ১০ শতাংশ অর্থেই ওদের (এসিইউ) পাওয়া যাবে। তাই অন্যদের ভাড়া করার চেয়ে নিজেদের মানুষ ভাড়া করাই ভালো।’

Eprothom Aloআইপিএলের জন্য ভারতে আসা আকসুর প্রতিটি কর্মকর্তার জন্য দৈনিক ৫০০ ডলার খরচ হয় বিসিসিআইয়ের। আকসুর এসব কর্মকর্তারা আবার কাজের জন্য এসিইউ কর্মকর্তাদের ভাড়া করে থাকেন। তাঁদের বলা হয় সহকারী দুর্নীতি দমন ব্যবস্থাপক। এসিইউ-র প্রতিটি কর্মকর্তার জন্য দিন প্রতি খরচ হয় ৬ হাজার ৫০০ রুপি। প্রায় দুই মাসব্যাপী আইপিএলকে (২৩ মার্চ শুরু) সামনে রেখে এসিইউ কর্মকর্তাদের জনবল বাড়ানোর নির্দেশও দিয়েছে বিসিসিআই। আইপিএলে যে কোনো ধরনের দুর্নীতি প্রতিরোধে হোটেল এবং স্টেডিয়ামের ভেতরে খেলোয়াড় ও ম্যাচ অফিশিয়ালদের কাছাকাছি থাকবেন এসিইউ কর্মকর্তারা।

বিসিসিআইয়ের আর আকসুর দ্বারস্থ না হওয়ার এই সিদ্ধান্ত হুট করে নেওয়া হয়নি। ভারতীয় বোর্ডের দুর্নীতি দমন বিভাগে (এসিইউ) অনেক বছর ধরেই জনবল সংকট ছিল। মাত্র তিনজন দিয়ে অনেক দিন চলেছে এসিইউ। এই বিভাগের সাবেক প্রধান নীরাজ কুমার এর আগে আকসুর অধীনে কাজ করার নানা অসুবিধা বর্ণনা করে শক্ত ভাষায় একটি মেইল করেছিলেন সিওএ সদস্যদের। সেই মেইলে বিসিসিআইয়ের ‘দুর্নীতি দমনের ইচ্ছে নেই বললেই চলে’ লিখে সরাসরি ক্ষোভও ঝেড়েছিলেন নীরাজ। এর প্রেক্ষিতে গত কয়েক মাসে এসিইউ-তে জনবল বাড়িয়েছে বিসিসিআই।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


Our Like Page আমাদের পেজ লাইক করুন
Raytahost Facebook Sharing Powered By : Raytahost.com